বৃহস্পতিবার , জুলাই ১৮ ২০২৪

ফরিদগঞ্জের পশ্চিম লাড়ুয়া অন্যের পুকুরে ডেজিং, আদালতে স্থিতি অবস্থা জারি

ফরিদগঞ্জের পশ্চিম লাড়ুয়ায়া গ্রামে শাহজাহান মিজির জমিতে অবৈধ ভাবে ডেজিংয়ের অভিযোগে চাঁদপুরের বিজ্ঞ অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে স্থিতি অবস্থা জারী করা হয়েছে।

বিজ্ঞ আদালতে অভিযোগের আলোকে জানা যায়, পশ্চিম লাড়–য়া গ্রামের আব্দুল হক মিজির ছেলে শাহজাহান মিজি দীর্ঘদিন যাবত পৈত্রিক ওয়ারিশসূত্রে নালিশী বি.এস ১০৮৫ দাগে পুকুর মালিকানা থাকিয়া ভোগ দখল করে আসছে। অভিযোগে আরো জানা যায় অভিযোগকারী শাহজাহান মিজির চাচাতো ভাই আমিন উল্যা মিজি ঢাকায় স্থায়ী ভাবে বসবাস করায় শাহজাহান মিজি তার নিজের জমিসহ আমিন উল্যা মিজির পৈত্রিক সম্পত্তি দেখা শুনার দায়িত্ব পালন করে আসছে।

এতে, স্থানীয় সৈয়দ আহম্মদ ভূঁইয়ার ছেলে হেলাল ভূঁইয়া তাদের পৈত্রিক বি.এস ১০৮৫ দাগে পুকুরে গত ১৪ সেপ্টেম্বর ডেজিং করার প্রস্তুতি নেয়। এতে শাহ্জাহান মিজি বাঁধা দিলে হেলাল ভূইয়া গংরা বিভিন্ন ভাবে হুমকি প্রদান করে। শাহজাহান মিজি আইনের প্রতি শ্রদ্ধা রেখে

গত ১৫ সেপ্টেম্বর চাঁদপুরের অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে ফৌজদারী কাঃ বিঃ ১৪৫ ধারায় আবেদন করে বিজ্ঞ আদালত অভিযোগটি আমলে নিয়ে স্থিতি অবস্থা জারী করে। মোক নং- ৬৫১/২০২০ইং। পরবর্তীতে গত বুধবার ১৬ সেপ্টেম্বর ফরিদগঞ্জ থানার পুলিশ তাহা বাস্তবায়ন করে।

শাহাজান মিজি জানান, আমাদের পৈত্রিক সম্পত্তিতে হেলাল ভূঁইয়া গংরা অবৈধভাবে নিষিদ্ধ ডেজিং করছে। তাই বিজ্ঞ আদালতের স্থিতি অবস্থার আবেদন করেছি। এ বিষয়ে, হেলাল ভূইয়া জানান, আমরা আমিন উল্যাহ গংদের কাছ থেকে ১ একর ২১ শতক জমি ক্রয় করেছি এরই মধ্যে আমাদের পুকুরে ডেজিং করছি। ডেজিং অবৈধ কিনা তাহা আমার জানা নেই।

এ ব্যাপারে ফরিদগঞ্জ থানার সহকারী উপ-পরিদর্শক (এ.এস.আই) রাজেশ চন্দ্র পাল জানান, বিজ্ঞ আদালতে আদেশ মোতাবেক ঘটনাস্থলে গিয়ে ডেজিং বন্ধ করে দিয়েছি এবং উভয় পক্ষকে কাগজপত্র নিয়ে আদালতে স্বরণাপন্ন হওয়ার নির্দেশনা দিয়েছি। -ফরিদগঞ্জ প্রতিনিধি