বৃহস্পতিবার , জুন ১৩ ২০২৪

জামায়াতে ইসলামী চাঁদপুর শাখার সিরাতুন্নবী (সা.) শীর্ষক আলোচনা সভা

জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রে বিশ্বনবীকে (সা.) আদর্শ নেতা হিসাবে অনুসরণ করতে হবে

—— সহ-সেক্রেটারি জেনারেল, সাবেক এমপি মাও: হামিদুর রহমান

স্টাফ রিপোর্টার

বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় সহ-সেক্রেটারি জেনারেল, সাবেক এমপি মুহতারাম মাওলানা হামিদুর রহমান আজাদ বলেছেন, আল্লাহ রাব্বুল আলামীন মহানবীকে (সা.) বিশ্ব জাহানের জন্য রহমত স্বরূপ পাঠিয়েছেন। তার উম্মত হিসাবে আমরা সৌভাগ্যবান ও গর্বিত।

তাই দুনিয়ায় শান্তি ও আখেরাতে মুক্তিলাভ করতে হলে আল্লাহ নির্দেশিত ও রাসূল (সা.) অনুসৃত পথই আমাদেরকে অনুসরণ করতে হবে। তিনি জীবনের প্রতিটি ক্ষেত্রে বিশ্বনবীকে (সা.) আদর্শ নেতা হিসাবে অনুসরণ করতে সকলের প্রতি আহ্বান জানান।

গত 2 অক্টোবর সোমবার সকালে ভার্চুয়ালে জামায়াতে ইসলামী চাঁদপুর জেলা শাখার আয়োজিত সিরাতুন্নবী (সা.) শীর্ষক আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব  কথা বলেন।

কেন্দ্রীয় মজলিস শূরা সদস্য ও জেলা আমীর অধ্যক্ষ মাওঃ আবদুর রহীম পাটওয়ারীর সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় বিষয়ভিত্তিক আলোচনা রাখেন বাংলাদেশ কুরআন শিক্ষা সোসাইটি সভাপতি মুহতারাম মাওলানা আবদুস শহীদ নাসিম,

জেলা নায়েবে আমীর মাওলানা মোঃবিল্লাল হোসাইন মিয়াজি, ইসলামী ছাত্রশিবির চাঁদপুর শহর সভাপতি মু.মুজাহিদুল ইসলাম, জেলা সভাপতি হাফিজ  মু.দেলওয়ার হোসাইন, অর্থসহ পবিত্র কুরআন তিলাওয়াত করেন মুহাদ্দিস আবু নসর আশরাফী প্রমুখ।

হামিদুর রহমান আজাদ বলেন, আল্লাহ রাব্বুল আলামীন দ্বীন বিজয়ী করতে মানুষকে খলিফার দায়িত্ব দিয়ে দুনিয়াতে পাঠিয়েছেন। নবী-রাসূলগণ একই দায়িত্ব পালন করেছেন। কিন্তু যারাই মানুষকে সত্য দ্বীনের দাওয়াত দিয়েছেন, তাদের ওপরই নেমে এসেছে অবর্ণনীয় জুলুম-নির্যাতন।

আমাদের দেশের অনেক প্রেক্ষাপটে ইসলামী আন্দোলনের ওপর জুলুম-নির্যাতন ইতিহাসের সে ধারাবাহিকতারই অংশ। তাই সকল বাধা-প্রতিবন্ধকতা ও জুলুম-নির্যাতন উপেক্ষা করে দ্বীনকে বিজয়ী করার প্রাণান্তকর প্রচেষ্টা চালিয়ে যেতে হবে। তিনি দ্বীনকে বিজয়ী করার প্রত্যয়ে সকলকে ঐক্যবদ্ধ প্রয়াস চালানোর আহ্বান জানান।

ক্যাপশন: সিরাতুন্নবী (সা.) উপলক্ষে বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামী চাঁদপুর জেলা শাখার উদ্যোগে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ জামায়াতে ইসলামীর কেন্দ্রীয় সহ-সেক্রেটারি জেনারেল, সাবেক এমপি মুহতারাম মাওলানা হামিদুর রহমান আজাদ।