শুক্রবার , জুলাই ১৯ ২০২৪

চাঁদপুর পৌর নির্বাচনে ধানের শীষ পেতে যাচ্ছেন আক্তার হোসেন মাঝি

চাঁদপুর পৌর নির্বাচনে ধানের শীষ প্রতীকে জেলা বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক আক্তার হোসেন মাঝি মনোনিত হয়েছেন। ১২ সেপ্টেম্বর শনিবার সকাল ১২টায় জেলা বিএনপির পক্ষ থেকে আনুষ্ঠানিক ঘোষণা করেন জেলা বিএনপির আহ্বায়ক শেখ ফরিদ আহমেদ মানিক ।

এর আগে ১১ সেপ্টেম্বর রাতে চাঁদপুর জেলা ও পৌর বিএনপির নেতৃত্ব পর্যায়ের রূদ্ধধার বৈঠকে তাকে মনোনিত করা হয়। ১০ সেপ্টেম্বর আবেদন ফরমের ভিত্তিতে প্রার্থীদের সাথে মতবিনিময় সভা হয় এবং সেটি মূলতবি করে শুক্রবার রাতে পুনরায় জেলার নেতৃবৃন্দ সভায় মিলিত হয়।

মনোনয়ন প্রত্যাশীরা ছিলেন জেলা বিএনপির যুগ্ম আহ্বায়ক আক্তার হোসেন মাঝি, চাঁদপুর সরকারি কলেজের সাবেক জিএস হাজী মোশারফ হোসাইন, চাঁদপুর সদর থানা বিএনপির সভাপতি শাহজালাল মিশন এবং জেলা ছাত্রদলের সাবেক সাধারণ সম্পাদক কাজী মোহাম্মদ ইব্রাহীম জুয়েল।

প্রায় দেড়যুগ পৌরসভা মেয়র থেকে বঞ্চিত দলটি একক প্রার্থী নির্ধারণে বেশ ঘাম জড়াতে হয়েছে। শক্তিশালী সরকার দলীয় প্রার্থীর বিপরীতে একক প্রার্থী নির্বাচনে চুলছেঁড়া বিশ্লেষণ করে এই সিদ্ধান্ত নিয়েছেন বিএনপির নীতিনির্ধারকগণ।

কারণ সদ্য প্রয়াত বিএনপির মনোনিত একক প্রার্থী ব্যপক জনপ্রিয় নেতা শফিকুর রহমান ভুইয়ার স্থলে জনপ্রিয়তা এবং সাংগঠনিক দক্ষতা সম্পন্ন প্রার্থীকে মনোনয়ন দিতে আগ্রহী ছিলেন জেলা বিএনপির আহবায়ক শেখ ফরিদ আহমেদ মানিকসহ দলের নিতি নির্ধারকগণ। পরবর্তী ধাপ হিসেবে জেলা বিএনপির স্বাক্ষরিত পত্রে এ প্রার্থীর নাম কেন্দ্রে পাঠানো হবে।

প্রসঙ্গত, আগামী ১০ই অক্টোবর শনিবার চাঁদপুর পৌরসভার সাধারণ নির্বাচনের ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনের (ইভিএম) মাধ্যমে ভোটগ্রহণ করা হবে। স্থগিত হওয়া চাঁদপুর পৌরসভা নির্বাচনের পুনঃতফসিলে ১৫ সেপ্টেম্বর মঙ্গলবার জেলা রিটার্নিং অফিসারের কাছে মনোনয়নপত্র দাখিলের শেষ দিন। ১৭ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার মনোনয়নপত্র যাচাই-বাছাই। ২৪ই সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার মনোনয়ন প্রত্যাহারের শেষ দিন এবং ১০ই অক্টোবর শনিবার ভোটগ্রহণ। ওইদিন সকাল ৯টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত একটানা ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে।

এর আগে বিএনপি সমর্থিত প্রার্থী সফিকুর রহমান ভূঁইয়ার মৃত্যুতে অনির্দিষ্টকালের জন্য স্থগিত করা হয় চাঁদপুর পৌরসভার সাধারণ নির্বাচন।

গত ২৯শে মার্চ এই নির্বাচন হওয়ার কথা ছিলো। তবে এর আগে গত ১৬ই মার্চ গণবিজ্ঞপ্তি জারি করে নির্বাচন স্থগিত করে কমিশন।

এদিকে চাঁদপুর জেলা নির্বাচন কার্যালয় সূত্রে জানা যায়, চাঁদপুর পৌরসভার স্থগিত নির্বাচন সম্পন্নের লক্ষ্যে মেয়র পদে মনোনয়নপত্র দাখিলের সুযোগ রাখা হয়েছে। এছাড়া ইতোপূর্বে মেয়র পদে যারা মনোনয়নপত্র দাখিল করেছেন। তাদের আর নতুন করে দাখিলের প্রয়োজন হবে না। একই সাথে সংরক্ষিত কাউন্সিলর, সাধারণ আসনের কাউন্সিলর পদে নতুন করে মনোনয়নপত্র দাখিলের সুযোগ থাকবে না। ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিনের (ইভিএম) মাধ্যমে নির্বাচনের ভোটগ্রহণ করা হবে।

এই নির্বাচনে মেয়র পদে আওয়ামীলীগের নৌকা মার্কা নিয়ে নির্বাচনে লড়বেন অ্যাড. জিল্লুর রহমান জুয়েল এবং হাতপাখা মার্কার প্রার্থী ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের চাঁদপুর জেলা সংগঠনের নেতা মামুনুর রশিদ বেলাল।